আপনি জীবনে কতখানি সফল মানুষ হবেন? জেনে নিন এই ছোট্ট টেস্ট থেকে!

আপনি জীবনে কতখানি সফল মানুষ হবেন? জেনে নিন এই ছোট্ট টেস্ট থেকে!

প্রত্যেকটি মানুষ তার জীবনের সকল কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে সফলতা খোঁজেন। অনেককে সফলতার পেছনেই ছুটতে দেখা যায় বেশীরভাগ সময়। আমাদের মনের মধ্যে এই জিনিসটি গেঁথে গিয়েছে যে জীবনটাকে উন্নত করতে হলে জীবনে আনতে হবে সফলতা। আসলেই তাই। বর্তমানের এই যুগে মানুষজন সফল মানুষকেই তোয়াজ করে চলেন, তাদেরই জয়জয়কার চারিদিকে। এসব দেখে প্রত্যেকেই স্বপ্ন বোনেন একদিন সফল ব্যক্তি হিসেবে নিজেকে গড়ে তুলবেন।

কিন্তু আমরা জীবনে সফল হবো কি হবো না তা যে সম্পূর্ণ আমাদের ওপরেই নির্ভর করে, এই কথাটি অনেকেই মানতে নারাজ। অনেকেই ভাবেন মামা/চাচার কল্যাণে এবং টাকা পয়সার মাধ্যমে জীবনে সফল হওয়া যায়। এই কথাটি কিছু ক্ষেত্রে সত্যি হলেও সকল ক্ষেত্রে নয়। সফল মানুষদের জীবনী ঘাঁটলে দেখা যায় তারা কতোটা ত্যাগ-তিতিক্ষা শেষে আজকের এই সফল মানুষ। সুতরাং যা করার আমাদের নিজেদেরই করতে হবে। চলুন তবে আজ দেখে নেয়া যাক জীবনে আপনি কতোটুকু সফলতার মুখ দেখতে পাবেন তা বুঝতে পারার সহজ একটি পদ্ধতি।

১. আপনার সারাদিন কীভাবে কাটে?

ক) কাজ, বাসা, ঘুম
খ) পড়ালেখা, কাজ, বাসা, ঘুম
গ) ঘুম, বাসা, ঘুম
ঘ) কাজ, ঘোরাফেরা, বাসা, ঘুম

২. সফলতা বিষয়ে আপনার মতামত কী?

ক) কপালে লেখা থাকলে সফল হবো
খ) আমাকে সফল যে কোনো মূল্যে হতে হবে
গ) আমি চেষ্টা চালিয়ে যাবো, বাকিটা ভাগ্য
ঘ) ধুর! যা হওয়ার তাই হবে

৩. সফল ব্যক্তিদের প্রতি আপনার দৃষ্টিভঙ্গি

ক) তারা অনেক বেশি পরিশ্রমী, তাই ভালো ফলাফল পেয়েছেন
খ) সবই ভাগ্যের খেলা
গ) সবই মামা/চাচা আর ধনী বাবার কল্যাণে
ঘ) তাদের অনুসরণ করাই আমার লক্ষ্য

৪. কোনো কাজে সফল হলে আপনার অভিব্যক্তি কী ধরণের হয়?

ক) আমি জানতাম আমি পারব
খ) আমার ভাগ্যে ছিল বলে আমি পেরেছি
গ) আমি না পারলে আর কারো পক্ষে কাজটি করা সম্ভব হতো না
ঘ) কীভাবে যেন পেরে গেছি, ভালোই তো

৫. কোনো কাজে বিফল হলে আপনার অভিব্যক্তি কী ধরণের হয়?

ক) ধুর, আমাকে দিয়ে কিছুই হবে না
খ) ভাগ্যে ছিল না হয় নি। এতে আমার হাত নেই
গ) হয়নি তো কি হয়েছে, পরবর্তী সময়ে আরও ভালো করে চেষ্টা করবো
ঘ) আমার চেষ্টা করাই ভুল হয়েছে

৬. আপনার সম্পর্কে আপনার প্রিয়জন এক শব্দে কী বলবেন?

ক) পরিশ্রমী
খ) অলস
গ) বোকা
ঘ) স্বার্থপর

৭. কোনো কাজের প্রতি আপনার মনোভাব কী ধরণের হয়?

ক) কাজটি আমাকে পারতেই হবে, যেভাবেই হোক
খ) আমি যথাসাধ্য চেষ্টা করে যাবো। কাজটি হবে
গ) হলে হবে, না হলে নেই
ঘ) কাজটি করতে না পারলে এটা হবে সেটা হবে, তাই আমাকে পারতে হবে

৮. ধরুন আপনাকে কেউ কোন কাজ দিয়েছিলেন যা আপনি কোনো কারণে করেন নি, কী বলবেন তাকে?

ক) একদমই ভুলে গিয়েছিলাম
খ) কী কারণে করতে পারেন নি তা বলবেন
গ) নির্ভর করে কাজটি কে দিয়েছিলেন, একেক জনের কাছে একেক ধরণের অজুহাত দেয়া যায়
ঘ) করতে পারিনি তো পারিনি, কৈফিয়ত দেয়া জরুরী নয়

৯. আপনি কি ভাবেন আপনি জীবনে সফলতা আনতে পারবেন?

ক) হ্যাঁ, অবশ্যই পারবো।
খ) আমি সফল। তবে এর ঊর্ধ্বেও আমাকে যেতে হবে
গ) জানি না, ভাগ্যে লেখা থাকলে হয়তো।
ঘ) যেমন আছি তাই তো ভালো, দেখি কি হয়

১০. জীবনে সফল হতে আপনি কী কী করতে পারেন?

ক) সফল হতে যা দরকার সব করতে রাজি আছি
খ) নিজের সাধ্যমতো চেষ্টা করবো
গ) অনেক কিছু। কিন্তু সবই ন্যায়ভাবে
ঘ) জানি না, পরিস্থিতি বলে দেবে

ফলাফলঃ

১ এর ক-১৫, খ-২০, গ-৫, ঘ-১০
২ এর ক-১০, খ-২০, গ-১৫, ঘ-৫
৩ এর ক-১৫, খ-১০, গ-৫, ঘ-২০
৪ এর ক-১৫, খ-১০, গ-২০, ঘ-৫
৫ এর ক-১০, খ-১৫, গ-২০, ঘ-৫
৬ এর ক-১৫, খ-৫, গ-১০, ঘ-২০
৭ এর ক-২০, খ-১৫, গ-৫, ঘ-১০
৮ এর ক-১৫, খ-২০, গ-১০, ঘ-৫
৯ এর ক-১৫, খ-২০, গ-১০, ঘ-৫
১০ এর ক-২০, খ-১০, গ-১৫, ঘ-৫

৫০ থেকে ৯৯ এর জন্যঃ

আপানার জীবনে ব্যর্থতা আসার সম্ভাবনাই বেশি। কারণ কাজ এবং সফলতার প্রতি আপনার যে ধারণা তা থেকে বোঝা যায় যে আপনি কাজের প্রতি তেমন গুরুত্ব দেন না। এর কারণ হতে পারে আপনি ততোটা বয়স্ক হননি যে আপনি কাজ ও সফলতার গুরুত্ব বুঝবেন। আর কোনো সফল ব্যক্তিই জীবনে পরিশ্রম করে সফল হননি এটি ভুল ধারণা। আপনার সব চাইতে বড় সমস্যা আপনি সব কিছু নেতিবাচক দৃষ্টিতে দেখেন। এটি ঠিক নয়। নিজের দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন করুন যদি জীবনে সফলতার মুখ দেখতে চান।

১০০ থেকে ১৩৯ এর জন্যঃ

আপনার বড় সমস্যা হচ্ছে আপনি বেশীরভাগ সময় ভাগ্যের ওপর ভরসা করে থাকেন। এবং ভাগ্যের ওপর ভরসা করে থেকে নিজে তেমন কোনো চেষ্টাই করেন না। আপনাকে বুঝতে হবে ভাগ্য নিজে থেকে গড়ে নিতে হয়। ভাগ্যের ওপর ভরসা রাখুন এবং সেই সাথে চেষ্টা করে যান। আপনার জীবনে এখনো সফলতা সেভাবে আসেনি বলে নিজের ভাগ্যের ওপর আপনি বিরক্ত। কিন্তু আপনি নিজে কাজ করে সফলতা আনতে পারবেন। এই কাজটি করুন জীবনে অনেক সফল হতে পারবেন। শুভ কামনা রইল।

১৪০ থেকে ১৬৯ এর জন্যঃ

আপনি জীবনে অনেক সফল একজন মানুষ হতে পারবেন। কারণ আপনি জীবনের বাস্তবতা অনেক ভালো করে বুঝে নিয়েছেন। এবং সেই হিসাব অনুযায়ী এগিয়ে যাচ্ছেন। আপনি সফল ব্যক্তিদের নিজের আদর্শ মেনে চলেন এই জিনিসটি আপনাকে অনেকটা এগিয়ে নিতে যাবে। আপনার বাস্তব জ্ঞান এবং নিজের ওপর ভরসা ও এর সাথে পরিশ্রমী মনোভাব আপনাকে এনে দেবে সফলতা।

১৭০ থেকে ২০০ এর জন্যঃ

আপনি একজন বড় মাপের সফল মানুষ হবেন কিন্তু আপনার মনমানসিকতা খানিকটা ভিন্ন ধরণের। আপনি জীবনে সফলতা আনতে গিয়ে অনেক কিছু হারাবেন যা আপনি নিজেও বুঝতে পারবেন না। সফলতার পেছনে ছুটতে গিয়ে আপনি আপনার আপন মানুষগুলো থেকে সরে যাবেন। সফলতার নেশায় আপনি ন্যায়-অন্যায় জ্ঞান থেকেও দূরে সরে যেতে পারেন। এবং আপনার অতিরিক্ত আত্মবিশ্বাস আপনার সফলতার পথেও বাঁধা হতে পারে। নিজের মানসিকতায় সামান্য পরিবর্তন আনুন, তাহলে আক্ষরিক অর্থেই সফলতার মুখ দেখতে ও ধরে রাখতে পারবেন।

source:priyo.com

It's only fair to share...Share on FacebookShare on Google+Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn

One thought on “আপনি জীবনে কতখানি সফল মানুষ হবেন? জেনে নিন এই ছোট্ট টেস্ট থেকে!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *