যে ৬টি প্রশ্নে খুঁজে পেতে পারেন নিজ জীবনের সঠিক লক্ষ্য

যে ৬টি প্রশ্নে খুঁজে পেতে পারেন নিজ জীবনের সঠিক লক্ষ্য

আপনি কি আপনার জীবনের সঠিক লক্ষ্যটি জানেন? অনেক মানুষই সারা জীবনে কোটি কোটি টাকা উপার্জন করে, প্রচন্ড ব্যয়বহুল জীবন কাটায়। কিন্তু তবুও কি যেন একটা অস্বস্তি তাদের মনকে কুড়ে কুড়ে খায় শুধু এই একটি কারণে। আর কারণটি হল যে তারা নিজেরাই জানেনা তাদের জীবনের সত্যিকারের লক্ষ্যটি কী। হতে পারে আপনি রোজ যে আটপৌরে জীবনটা কাটাচ্ছেন সেটাই আপনার জীবনের মূল লক্ষ্য। কিন্তু যদি তা না হয়, তাহলে সেটা কী? নিজেকে করুন এই প্রশ্নগুলো আর জেনে নিন।

১. ছোটবেলায় কী হতে চাইতেন আপনি?

প্রায় সবার কাছেই এই ব্যাপারটা কেবল একটা তুচ্ছ হাসি-তামাশার ব্যাপার। ছোটবেলায় তো কতজনই কত কিছু হতে চায়। ওগুলোর কি আর কোন দাম আছে নাকি? এই তো ভাবছেন? কিন্তু না। ছোটবেলার কোন ইচ্ছেকেই হেলাফেলা করবেন না। ছোটবেলায় আপনি কী হতে চেয়েছিলেন? পাইলট, ডাক্তার, লেখক? ভাবুন। কে জানে, আজকের এত কাজের পরও যে শূন্যস্থানটা আপনার বুকে অনেকটা জায়গা জুড়ে আছে তার কারণ হয়তো এই ছোট্টবেলায় দেখা ছোট্ট আর অধরা ভবিষ্যত লক্ষ্যটাই।

২. কাজ না করলে কী করতেন আপনি?

সারা সপ্তাহ অফিসের ঝামেলা শেষে ছুটির দিনটায় হয়তো কেবল ঘুমিয়ে, টিভি দেখে অথবা বাচ্চাদের সাথে বাইরে ঘুরেই সময় কাটান আপনি। কিন্তু একবার চিন্তা করুন তো যদি এইসব কাজ না থাকতো? যদি সকালে উঠেই অফিসে যাওয়ার তাড়া না থাকতো তাহলে সারাদিনে কি করতেন আপনি? ভাবুন আর সেটা লিখে ফেলুন। প্রতি ছুটির দিনেই নিজের সেই করতে চাওয়া কাজগুলোর দু-একটা পূরণ করে দেখুন। আর কিছু না হলেও মানসিক শান্তি পাবেন।

৩. কোন কাজটা আপনাকে সবকিছু ভুলিয়ে দেয়?

হয়তো অনেক ব্যস্ত মানুষ আপনি। কিন্তু কিছু একটা কাজ রয়েছে যেটা করতে বসলে বা সামনে এলে চারপাশের সময়ের খেয়াল আর আপনার থাকেনা। কী করে যে কী হচ্ছে চারপাশে সেটার কোন দিকেই আর তাকানো হয় না আপনার? একটু মনে করুন তো, এটাই আপনার জীবনের লক্ষ্য না তো?

৪. কী করতে বেশি ভালো লাগে?

নিজের দৈনন্দিন কাজকর্মের দিকে লক্ষ্য রাখুন। কোন জিনিসটা সবচাইতে বেশি আকর্ষণ করছে আপনাকে? যেমন- খবরের কাগজ পড়ার সময় দেখুন কোন পাতাটা বেশি টানছে আপনাকে? লক্ষ্য করুন ব্যাপারগুলো। যেটা ভালো লাগছে করতে সেটাই করুন। হয়তো সেটাই আপনার জীবনের লক্ষ্য।

৫. কী নিয়ে কথা বলতে ভালোবাসেন?

মানুষ যেটা করতে ভালোবাসে, যেটা তার জীবনের রক্ষ্য ঘুরে ফিরে সেটা নিয়েই কথা বলতে থাকে। বিশেষ করে বন্ধুদের সাথে। আপনার একই কথা শুনে অনেকেই বিরক্ত হলেও সেটা আপনার ভালোবাসার জায়গা। আর তাই খেয়াল রাখুন কোন জিনিসটা বারবার বলছেন আপনি।

৬. আপনার করার তালিকায় কী আছে?

ধরুন আপনি কালকে মারা যাবেন। এবার ভাবুন তো কোন কাজটা আপনার জীবনে করার আছে যেটা এখনো অব্দি করা হয়ে ওঠে নি? নিজেকে সময় দিন এবং প্রথমেই যে কাজটার কথা মাথাতে আসে সেটাই করুন। এতে আপনার আবেগ আপনার অবচেতন মনের লক্ষ্যকে সামনে নিয়ে আসবে।

তথ্যসূত্র- লাইফহ্যাক

It's only fair to share...Share on FacebookShare on Google+Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *